Iman
About Iman
!empty.....
ঈমান-এর সংজ্ঞা
!empty.....
ঈমান সংশ্লিষ্ট সহি হাদিসসমূহ
!empty.....
ঈমান সংশ্লিষ্ট আল-কুরআনের আয়াতসমূহ
!empty.....
কবিরা গুনাসমূহ
!empty.....
ঈমান নষ্টকারী বিষয়সমূহ
!empty.....
বিষয়-৭: আখিরাতের উপর ঈমান
!empty.....
বিষয়-৬: কিয়ামতের উপর ঈমান
!empty.....
বিষয়-৫: তাকদীরের উপর ঈমান
!empty.....
বিষয়-৪: রাসুলগণের প্রতি ঈমান
!empty.....
বিষয়-৩: আসমানী কিতাবসমূহের প্রতি ঈমান
!empty.....
বিষয়-২: ফেরেশতাগণের প্রতি ঈমান
!empty.....
বিষয়-১: আল্লাহ’র প্রতি ঈমান
!empty.....
শাখা-৩: দেহের অঙ্গ-প্রতঙ্গ সংশ্লিষ্ট
!empty.....
শাখা-২: মৌখিক স্বীকৃতি সংশ্লিষ্ট
!empty.....
শাখা-১: ইতিকাদ ও অন্তরের আমল সংশ্লিষ্ট
!empty.....
ঈমানের শাখা-প্রশাখা
!empty.....
সূত্র :[1][1]

Information

যেকোন মুসলমানের জন্য ঈমান সম্পর্কে বিস্তারিত জানা প্রয়োজন। প্রকৃত পক্ষে কোন ব্যক্তি মুসলমান হবে তখনই যখন সে ঈমানদার হবে। ইবাদত কবুল হওয়ার পূর্বশর্ত ঈমান থাকা। তাই, যে কোন মুসলমানের জন্য ঈমানের খুঁটিনাটি বিষয় জানা জরুরি। এখানে ইসলাম, ঈমান, ঈমানের শাখা-প্রশাখাসমূহ, ঈমান ভংগ হয় এমন কাজসমূহ নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে যাতে একজন মুসলমান সে বিষয়ে সতর্ক থাকতে পারে।

 

এখানের বেশিরভাগ তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ হতে প্রকাশিত ইসলামের পঞ্চস্তম্ভ (তৃতীয় সংস্করণ, ২০০৪ খ্রি.) শীর্ষক বই এর মাওলানা এ এম এম সিরাজুল ইসলাম লিখিত দীর্ঘ প্রবন্ধ ঈমান (পৃ.১-৬৮) হতে। কিছু তথ্য অন্যান্য গ্রন্থ হতে নেয়া হয়েছে যার সূত্র যথাস্থানে উল্লেখ করা হয়েছে।

 

 

পবিত্র কুরআনুল কারীম এবং হাদিসসমূহের পাঠসমূহ (আরবি ও বাংলা) ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ হতে প্রকাশিত কুরআনুল কারীম ও হাদিসগ্রন্থসমূহ হতে গ্রহণ করা হয়েছে। হাদিসসমূহের নম্বর হিসেবে ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ হতে প্রকাশিত হাদিসগ্রন্থসমূহে হাদিসের যে নম্বর উল্লেখ করা হয়েছে তা ব্যবহার করা হয়েছে এবং হাদিস নম্বরের শেষে ‘ইফা’ সংকেত ব্যবহার করা হয়েছে। এর প্রধান কারণ, ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ হতে প্রকাশিত হাদিসগ্রন্থসমূহে হাদিসের মূল নম্বরসমূহ অনুসরণ করা হয়নি।

 

আমরা এখানে নিজেরা কোন কিছু তৈরি করিনি। সুনির্দিষ্ট সূত্র হতে তথ্য সংগ্রহ করে শুধু সহজ ভাষায় উপস্থাপনের চেষ্টা করা হয়েছে।

 

উল্লেখ্য, www.dailyislam.org এর অভীষ্ট পাঠকগোষ্ঠী (target reader group) হলো এমন মুসলমান যারা আরবি পাঠ‍্যক্রমে পড়াশোনা করেননি এবং ইসলামকে ধারণ করলেও এ সম্পর্কে প্রাতিষ্ঠানিক জ্ঞান কম। এ কারণে এ ওয়েবসাইটে ইসলামী শিক্ষার সনাতনী ধারা (কোরআন ও হাদিস উল্লেখ করে-করে কোন বিষয়বস্তু বর্ণনা করার ধারা) অনুসরণ করা হয়নি। আমাদের প্রাথমিক পর্যায়ের পাঠকগণের জন্য প্রথমে সহজ ও সাবলিল ভাষায় বিষয়টি বর্ণনা করা হয়েছে এবং আলোচনার শেষে পবিত্র কুরআনুল করীমের সংশ্লিষ্ট কিছু আয়াত ও সরাসরি সম্পর্কযুক্ত দুই-একটি হাদিস সূত্রসহ উল্লেখ করা হয়েছে। সর্বশেষে আরো পড়ুন শিরোনামে বর্ণিত বিষয়ের সাথে সংশ্লিষ্ট আয়াত ও হাদিসমূহের নম্বর উল্লেখ করা হয়েছে। যারা গভীরভাবে জানতে চান তারা আয়াত ও হাদিস নম্বরের ওপর ক্লিক করে মূল আয়াত ও হাদিসটি দেখে নিতে পারেন।

 

পবিত্র কুরআনুল করীমের কোন আয়াত বা তার অংশ-বিশেষ চিহ্নিত করতে ‘সুরা নম্বর’ঃ‘আয়াত নম্বর’ (যেমন ২:২৫৫ অর্থাৎ ২ নং সুরার ২৫৫ নং আয়াত) ব্যবহার করা হয়েছে। হাদিসের ক্ষেত্রে ‘হাদিস গ্রন্থের নাম’ ঃ ‘হাদিস নম্বর’ (যেমন সহীহ বুখারী ঃ ৭, ইফা অর্থাৎ ইসলামী ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ হতে প্রকাশিত সহীহ বুখারী শরীফের ৭ নং হাদিস এবং সহীহ বুখারী ঃ ২৬৯৭ অর্থাৎ মূল বুখারী শরীফের ২৬৯৭ নং হাদিস) ব্যবহার করা হয়েছে।

 

আল্লাহ আমাদের নির্ভুল তথ্য উপস্থাপনের তৌফিক দিন।

 

উপস্থাপিত তথ্যে কোন ভুল বা বিদআত জাতীয় উপাদান আছে বলে মনে করলে `Report Error’ বাটনে ক্লিক করে ভুলটি ধরিয়ে দিন। সেক্ষেত্রে আপনার যুক্তির পক্ষে অবশ্যই শুধু কোরআন ও হাদিসের নির্ভুল সূত্র উল্লেখ করবেন। আমরা বিতর্কমুক্ত থাকতে চাই। তাই আমরা যা-ই বলব, শুধু কোরআন ও সহীহ হাদিস হতে সুনির্দিষ্ট সূত্র উল্লেখ করে বলবো, ইনশা আল্লাহ। আল্লাহ আমাদের সেই তৌফিক দিন। 

 

ইসলাম

ইসলাম’ শব্দের অর্থ হলো আত্মসমর্পণ করা, নতি স্বীকার করা, মাথা আনত করা, আনুগত্য স্বীকার করা, বিনা আপত্তিতে কারো আদেশ-নিষেধ মেনে নেওয়া। শরীয়তের পরিভাষায় স্বেচ্ছায় আল্লাহ্‌র অনুগত হওয়া বা বিনা আপত্তিতে জীবনের সর্বব্যাপারে আল্লাহর আদেশ-নিষেধ মেনে নেওয়াকে ইসলাম বলে। ইসলামের মূল বৈশিষ্ট্য নিম্রূপ:

  • ইসলাম মানব জাতির জন্য মনোনীত একমাত্র এবং পূর্ণাঙ্গ জীবন ব্যবস্থা;
  • ইসলাম মহান আল্লাহ্‌র একমাত্র মনোনীত দীন বা জীবনদর্শন;
  • ইসলাম “আল্লাহ ব্যতীত আর কোন ইলাহ নেই এবং মুহাম্মদ (সা.) আল্লাহর বান্দা ও রাসুল” বলে স্বীকার করে;
  • মানবজীবনের প্রতিটি দিক ও বিভাগের বিষয়ে ইসলামের সুস্পষ্ট দিক-নির্দেশনা বিদ্যমান;
  • ইসলাম মূল ৫টি ভিত্তির ওপর প্রতিষ্ঠিত, যথা: আল্লাহ ব্যতীত কোন ইলাহ নেই এবং হযরত মুহাম্মদ (সা) আল্লাহর বান্দা ও রাসুল বলে সাক্ষ্য দেয়া (ঈমান), সালাত কায়েম করা, রমজান মাসের সিয়াম পালন করা, সক্ষমতা অর্জিত হলে যাকাত আদায় করা, এবং বায়তুল্লাহ যাওয়ার সামর্থ থাকলে হজ্জ পালন করা।

 

ইসলামী জীবন অনুসরণকারীকে মুসলিম বা মুসলমান বলে।

 

পবিত্র কুরআন ও হাদীস শরীফে ইসলামের আরকানগুলো সম্পর্কে অনেক আয়াত ও হাদীস রয়েছে। এগুলো আন্তরিকভাবে মেনে নিলেই একজন ব্যক্তি মুসলিম হিসেবে বিবেচিত হতে পারে। অর্থাৎ সত্যনিষ্ঠ মনে আল্লাহকে মেনে নেয়া এবং তাঁর নির্দেশসমূহ কার্যকর করার নাম হচ্ছে ‘ইসলাম’।

 


King Fahd Glorious Qur’an Printing Complex, Madina, KSA হতে ইংরেজি ভাষায় তর্জমাসহ প্রকাশিত পবিত্র কুরআনুল করীম এর শেষে যুক্ত সংযুক্তি-২, পৃ.৯০০।

ঈমানের প্রধান বিষয়সমূহ
!empty.....
ঈমানের প্রকারভেদ
!empty.....
ঈমান-এর সংজ্ঞা

ইসলামের পঞ্চ স্তম্ভের মধ্যে প্রথম এবং প্রধান স্তম্ভ হলো ঈমান। আরবি “ঈমান” শব্দের অর্থ অন্তরের দৃঢ় বিশ্বাস, শান্তি বা নিরাপত্তা বিধান করা, কোনো ব্যক্তি বা বস্তুর ‍উপর দৃঢ় বিশ্বাস স্থাপন করা, গভীর প্রত্যয় লাভ করা, স্বীকার করা, ভরসা করা, অন্তরের প্রশান্তি লাভ করা।

কালিমাসমূহ
!empty.....
কালিমায়ে তাইয়্যিবা
!empty.....
কালিমায়ে শাহাদাত
!empty.....
কালিমায়ে তাওহীদ
!empty.....
কালিমায়ে তামজীদ
!empty.....
কালিমায়ে রদ্দে কুফর
!empty.....